আফগানিস্তানের লিথিয়ামের ভান্ডার লুট করছে যুক্তরাষ্ট্র

আফগানিস্তানের বিশাল খনিজ সম্পদ বিশেষ করে লিথিয়াম লুট করে নেওয়ার জন্যেই ২০০১ সালে দেশটিতে সামরিক আগ্রাসন চালিয়েছে আমেরিকা। এছাড়া, আফগানিস্তানে দখলদারিত্ব কায়েমের পর থেকে মার্কিন সেনারা আফিম চাষাবাদকে সুরক্ষা দিয়ে এসেছে। মার্কিন খ্যাতিমান শিক্ষাবিদ, ভেটারান্স ট্রুথ ম্যাগাজিনের সাংবাদিক ও নাইন/ইলেভেন বিষয়ক গবেষক জেমস হেনরি ফিটজার সম্প্রতি এমনটাই দাবি করেছেন।

তিনি সুস্পষ্ট করে বলেন, ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বর আমেরিকার বিশ্ব বাণিজ্যকেন্দ্র ও পেন্টাগনে জঙ্গি হামলার সঙ্গে আফগানিস্তানের কোনও সম্পর্ক ছিল না। ইরানের প্রেস টিভিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন তিনি। এখানেই শেষ নয়, তিনি আরও বলেন, ৯/১১’র হামলায় আফগানিস্তান জড়িত ছিল এটা হাস্যকর এবং অবিশ্বাস্য।

গত বৃহস্পতিবার মার্কিন সামরিক বাহিনীর জয়েন্ট চিফস অব স্টাফের চেয়ারম্যান জেনারেল জোসেফ ড্যানফোর্ড ওয়াশিংটন পোস্ট আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বলেছেন, আমেরিকা ও ন্যাটোর স্বার্থে এবং ৯/১১’র মতো আরেকটি হামলা ঠেকাতে হলে আফগানিস্তানে মার্কিন সেনা উপস্থিতি অব্যাহত রাখতে হবে। তার এই মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে প্রফেসর হেনরি ফিটজারের সাক্ষাৎকার নেয় প্রেস টিভি।

তিনি বলেন, ২০০১ সালের জঙ্গি হামলার পরিকল্পনা করেছে মার্কিন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ, প্রতিরক্ষা বিভাগ ও মোসাদ। মার্কিন সরকার ওই হামলার বিষয়ে যে প্রচার চালিয়েছে তার সঙ্গে বাস্তবতার কোনও মিল নেই বলেই দাবি তাঁর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *